চিকিৎসার নামে খালেদাকে বিদেশ পাঠাতে চায় ফকরুল

শহিদুল ইসলাম !
বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়া দুর্নীতি মামলায় কারাভোগ করছেন। এ অবস্থায় লন্ডন থেকে ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের নির্দেশেই চলছে বিএনপি। বর্তমানে তারেক রহমানের সাথে বিএনপির শীর্ষ নেতাদের সাথে দন্ধ চরম আকার ধারন করেছে বলে একাধিক সূত্রে প্রকাশ পেয়েছে।
লন্ডন থেকে তারেকের নেতৃত্ব নিয়ে প্রশ্ন তুলেছে অনেক নেতারা। তারেকের নেতৃত্ব মোটেও সুবিধা জনক নয়, তাই খালেদার অবর্তমানে ভারপ্রাপ্ত চেয়ারপার্শন তারেককে হঠাতে এখন ব্যস্ত হয়ে পড়েছে ফকরুল-রিজভিরা।
তারেককে হঠানোর ষড়যন্ত্র আরো বেগমান করতে বর্তমানে খালেদা জিয়াকেই চাবি-কাঠি হিসেবে বেছে নিয়েছে দলের সিনিয়র এ সকল নেতারা। খালেদা দেশে থাকলে তাদের এ ষড়যন্ত্র কখনও সফল হবে না।
তাই কারারুদ্ধ বেগম খালেদা জিয়ার হঠাৎ াসুস্থ্যতার সংবাদে উদ্বেগ প্রকাশ করে অবিলম্বে তার তার উন্নত চিকিৎসার জন্য দ্রুত মুক্তি দাবি করেছে বিএনপি। মির্জা ফকরুল ইসলাম আলমগীর দলের দেন্দ্রীয় কার্যালয়ে সংবাদ সন্মেলনের মাধ্যমে এমন টাই দাবি করেছেন।
কারন, খকরুল চান না বেগম জিয়া জেল থেকে মুক্তি পেয়ে আবার বিএনপির রাজনীতিতে ফিরে আসুক। দলের চেয়ারম্যান পদটা নিজের করে নিতে এর থেকে সুবিধাজনক সময় আর কি হতে পারে। সু-পরিকল্পিতভাবে খালেদাকে রাজনীতি থেকে সরিয়ে দেয়ার লক্ষ্যে মির্জা ফকরুলের এমন সিদ্ধান্ত কতটা কার্যকরী হয় তা দেখার জন্য অপেক্ষা গুনতে হবে দেশবাসীকে।