শিবালয়ে স্বাভাবিক প্রসব সেবা বিষয়ক কর্মশালা অনুষ্ঠিত

মানিকগঞ্জ টাইমস ॥
শিবালয় উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত ইউনিয়ন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যান কেন্দ্র ২৪/৭ অর্থ্যাৎ সার্বক্ষনিক স্বাভাবিক প্রসব সেবা জোরদার করণ বিষয়ক কর্মশালা শনিবার অনুষ্ঠিত হয়।

শিবালয় ইউএনও এএফএম ফিরোজ মাহমুদের সভাপতিত্ব অনুষ্ঠিত কর্মশালায় প্রধান অতিথি ছিলেন মানিকগঞ্জ-১ আসনে আ’লীগ দলীয় এমপি ও বিসিবি পরিচালক এএম নাঈমুর রহমান দুর্জয়।

অন্যান্যের মধ্যে পরিবার পরিকল্পনা বিভাগ প্রকল্প ব্যবস্থাপক ডাঃ ফাহমিদা সুলতানা, উপ-পরিচালক গোলাম নবী, মানিকগঞ্জ সিভিল সার্জন ডাঃ আনোয়ারুল আমিন আকন্দ, শিবালয় উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার রেজাউর রহমান খান জানু, স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডাঃ রেজাউল হক, পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা মৃদুল কুমার আচার্য্য, আ’লীগ সাধারণ সম্পাদক এমএ কুদ্দুস প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

প্রধান অতিথি আরোও বলেন, সরকারি হাসপাতালের ডাক্তাররা প্রাইভেট ক্লিনিকের এজেন্ট হিসেবে কাজ করছে বলে মন্তব্য করেছেন মানিকগঞ্জ-১ আসনে আ’লীগ দলীয় এমপি ও বিসিবি পরিচালক এএম নাঈমুর রহমান দুর্জয়।
তিনি আরও বলেন, বর্তমান সরকারের স্বাস্থ্যসেবা খাতে যথেষ্ট পরিমান বাজেট বরাদ্ধ থাকলেও কতিপয় ডাক্তাররা মফস্বল এলাকায় কাজ করতে অনিহা দেখাচ্ছে। যার ফলে সাধারণ মানুষ স্বাস্থ্যসেবা থেকে বঞ্চিত হচ্ছে। সরকারের সদ-ইচ্ছা ও উদ্দেশ্য বাস্তবায়নে মহান পেশায় ব্রত চিকিৎসকদের আরোও আন্তরিক হওয়ার আহবান জানান তিনি।
কর্মশালায় উপজেলা প্রেসক্লাব সভাপতি বাবুল আকতার মঞ্জুৃর, সম্পাদক শহিদুল ইসলাম, যুগ্ম সম্পাদক মোহাম্মদ ইউনুস আলী, সাংবাদিক সমিতি সম্পাদক নিরঞ্জন সূত্রধর, বাংলাদেশের খবর প্রতিনিধি মোঃ সুমন হোসেন, সময় টিভি প্রতিনিধি ইউসুফ আলীসহ ইউনিয়ন স্বাস্থ্যকর্মী, জনপ্রতিনিধি, সরকারি-বেসরকারি সংস্থার ১৪২ জন প্রতিনিধি অংশ নেন।

অন্যান্য বক্তারা বলেন, দেশে মাতৃ ও শিশু মৃত্যুর অন্যতম কারণ হচ্ছে গর্ভকালীন অতিরিক্ত রক্তক্ষরণ, অনিরাপদ গর্ভপাত, প্রসব পরবর্তী সংক্রমন, বাধাপ্রাপ্ত প্রসব, জরায়ু ফেটে যাওয়া, পরোক্ষ কারণ ইত্যাদি। এসকল বিষয় গুরুত্ব দিয়ে পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরাধীন এমসিএইচ সার্ভিসেস ইউনিট দেশ ব্যাপি কাজ করছে। যার ফলে বর্তমানে প্রতি হাজারে শিশু মৃত্যুর হার ১২ জনে নেমে এসেছে।